Home খেলাধূলা ইতিহাস গড়তে বিকেলে উইন্ডিজের মুখোমুখি বাংলাদেশ

ইতিহাস গড়তে বিকেলে উইন্ডিজের মুখোমুখি বাংলাদেশ

SHARE

বিশ্ববিদ্যায়ল পরিক্রমা ডেস্ক : টেস্ট সিরিজ জেতা হয়েছে, ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টির ট্রফিও জেতা হয়েছে, তবে সেটা আলাদাভাবে। একসঙ্গে তিন ফরম্যাটের শিরোপা উৎসব করা হয়নি কখনও। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে এবার সেই অপূর্ণতা ঘুচানোর সুযোগ বাংলাদেশের। আগেই টেস্ট ও ওয়ানডে সিরিজ জিতে নেওয়া টাইগাররা মিরপুরের শেষ টি-টোয়েন্টি জিতলেই লিখবে নতুন ইতিহাস।

শনিবার (২২ ডিসেম্বর) বিকেল ৫টায় শুরু হতে যাওয়া ম্যাচটি সরাসরি দেখা যাবে বিটিভি ও গাজী টিভিতে।

দ্বিপাক্ষিক সিরিজে বাংলাদেশ একসঙ্গে তিন ফরম্যাটের সিরিজ জিততে না পারলেও এমন ঘটনা ক্রিকেটে আছে ৩৩বার। সবচেয়ে বেশি সাতবার ‘ট্রেবল’ জিতেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। নিউজিল্যান্ড ও পাকিস্তান জিতেছে ছয়বার করে। আর অস্ট্রেলিয়ার দুইবারের সঙ্গে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও শ্রীলঙ্কার জয় একবার করে।

এই তালিকায় এবার বাংলাদেশের যোগ হওয়ার সুযোগ। প্রধান কোচ স্টিভ রোডস সিরিজ শুরুর আগেই এই ইতিহাস গড়ার ইঙ্গিত দিয়েছিলেন, ‘(তিন ফরম্যাটে সিরিজ জয়) অবশ্যই সম্ভব। এটার জন্য আমরা সম্ভাব্য সবটুকু উজাড় করে দেব। তিন সিরিজে জিততে পারলে আমাদের খুব ভালো লাগবে।’

বাংলাদেশ গত এক দশকে ১৪টি পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলেছে। যেখানে তিন ফরম্যাটে সিরিজ জয় একটিতেও নেই। তবে সুযোগ এসেছিল বেশ কয়েকবার। ২০০৯ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে ওয়ানডে ও টেস্ট জিতলেও হারতে হয়েছিল টি-টোয়েন্টিতে। তবে সবচেয়ে বড় সুযোগটি এসেছিল ২০১৫ সালে। ঘরের মাঠে সেবার ওয়ানডে সিরিজে পাকিস্তানকে হোয়াইটওয়াশ করার পর টি-টোয়েন্টিতেও জিতেছিল স্বাগতিকরা। কিন্তু টেস্ট সিরিজ আরেকবার পুড়তে হয় হতাশায়।

একসঙ্গে টেস্ট, ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি জয়ের আরেকটি সুবর্ণ সুযোগ বাংলাদেশের সামনে। সিলেটের প্রথম টি-টোয়েন্টি হারলেও মিরপুরের দ্বিতীয় ম্যাচে দুর্দান্তভাবে ঘুরে দাঁড়িয়ে সিরিজে ফিরিয়েছে সমতা। আজ জিতলেই সিরিজ জয়ের সঙ্গে লিখবে নতুন ইতিহাস। একই সঙ্গে বছরের শেষ ম্যাচটি জয় দিয়ে রাঙিয়ে নতুন বছর শুরুর করার প্রত্যাশা টাইগারদের।

সিরিজ নির্ধারণী ম্যাচটিতে দুই দলের জন্যই ‘তৃতীয় প্রতিপক্ষ’ হয়ে উঠতে পারে শিশির। দ্বিতীয় ম্যাচেও শিশির বেশ ভুগিয়েছে বাংলাদেশকে। টস তাই বড় পার্থক্য গড়ে দিতে পারে খেলায়। যদিও এসব ভাগ্যের ওপর ছেড়ে দিয়েছেন বাংলাদেশ অধিনায়ক সাকিব আল হাসান, ‘কিছু জিনিস আসলে ভাগ্যের ওপর ছেড়ে দেওয়া ভালো। শিশিরের সমস্যা মেনে নিয়েই খেলতে হবে। আশা করি, আগের ম্যাচের মতো আমরা মানিয়ে নিয়ে খেলতে পারব।’

টেস্ট ও ওয়ানডে সিরিজ স্বাগতিকরা দাপটে জিতলেও প্রথম টি-টোয়েন্টিতে তাদের উড়িয়ে দিয়েছিল ক্যারিবিয়ানরা। মিরপুরে ফিরে দ্বিতীয় ম্যাচে জবাবটা দারুণভাবে দিয়েছে বাংলাদেশ। শনিবারও এমন কিছুর প্রত্যাশা টাইগারদের স্পিন বোলিং কোচ সুনীল যোশির, ‘গতকাল (বৃহস্পতিবার) আমরা দারুণ খেলেছি। খেলার ধরনই ভিন্ন ছিল। আশা করছি আমরা এই ধারাটা ধরে রেখে সিরিজ জিততে পারব।’

তিন ফরম্যাটে দারুণ একটি বছর কাটিয়েছে বাংলাদেশ। আজ ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে খেলবে বছরের শেষ ম্যাচ। ‘ফাইনালে’ রূপ নেওয়া এই ম্যাচটি জিতলেই সিরিজ জেতার পাশাপাশি নতুন ইতিহাস গড়বে বাংলাদেশ- প্রথমবারের মতো দ্বিপাক্ষিক সিরিজের তিন ফরম্যাটের শিরোপা জয়ের উৎসব!