Home জাতীয় নির্বাচন নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের বিবৃতিতে হতাশ বাংলাদেশ

নির্বাচন নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের বিবৃতিতে হতাশ বাংলাদেশ


বিশ্ববিদ্যায়ল পরিক্রমা ডেস্ক :আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পর্যবেক্ষক পাঠানো নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে হতাশ হয়েছে বাংলাদেশ।

রোববার (২৩ ডিসেম্বর) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে এ হতাশার কথা উল্লেখ করে বলা হয়, নির্বাচন পরিচালনা করছে বাংলাদেশের নির্বাচন কমিশন, যা একটি সাংবিধানিক ও স্বাধীন প্রতিষ্ঠান। কারা নির্বাচন পর্যবেক্ষণের সুযোগ পাবেন তা নির্ধারণ করার জন্য প্রতিষ্ঠানটির বিধিবিধান রয়েছে। পর্যবেক্ষণে ইচ্ছুক ‘এশিয়ান নেটওয়ার্ক ফর ফ্রি ইলেকশনস’ (এএনএফআরইএল) যে তাদের আবেদন প্রত্যাহার করে নিয়েছে, তা একেবারেই তাদের নিজস্ব বিষয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, আগামী ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠেয় এই নির্বাচনে বাংলাদেশের নিবন্ধিত সব রাজনৈতিক দল অংশগ্রহণ করছে। বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন স্বাধীনভাবে এই নির্বাচন পরিচালনা করছে। নির্বাচন পর্যবেক্ষণে আর্ন্তজাতিক পর্যবেক্ষকদের স্বাগত জানায় বাংলাদেশ। বিভিন্ন দেশ ও সংস্থার ১৭৫ জন বিদেশি পর্যবেক্ষক এই নির্বাচন পর্যবেক্ষণের জন্য আবেদন করেছে।

এসব পর্যবেক্ষক কমিশনের নিয়ম অনুযায়ী অ্যাক্রেডিটেশনও করেছে। এএনএফআরএলসহ এসব পর্য‌বেক্ষকদের ভিসা রয়েছে আবেদন প্রক্রিয়ার মধ্যে। এই পরিপ্রেক্ষিতে এএনএফআরএল-এর পর্যবেক্ষক ভিসা আবেদন বাতিলের সিদ্ধান্ত তাদের নিজস্ব বিষয়। এছাড়া এএনএফআরএল পর্যবেক্ষকদের মধ্যে প্রায় অর্ধেক ভিসা আবেদনকারী ইতোমধ্যেই অনুমোদিত হয়েছে এবং বাকিগুলি প্রক্রিয়াধীন।

বিজ্ঞপ্তিতে আরো বলা হয়, এএনএফআরএল-এর প্রতিষ্ঠাতা সদস্য হিসেবে বাংলাদেশের বেসরকারি প্রতিষ্ঠান ‘অধিকার’ রয়েছে। এটা সবাই জানে যে, অধিকার একটি পক্ষপাতমূলক ও বাংলাদেশের স্বার্থবিরোধী সংস্থা, বিশেষ করে আওয়ামী লীগ সরকারের বিরুদ্ধে সংস্থাটি কাজ করছে।

গত অক্টোবর-ডিসেম্বর, ২০১৮-তে অধিকারের প্রতিবেদনে দেখা যায়, বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের একজন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেলকে এই সংস্থার উচ্চ পদে নিয়োগ দিয়েছে। এই হিসেবেই সংস্থাটি নিরপেক্ষ ও বিশ্বাসযোগ্য অবস্থান হারিয়েছে। কেননা গণপ্রতিনিধিত্ব আইন ১৯৭২ সালের ৯১ (সি) (১) ধারা অনুযায়ী কোনো রাজনৈতিক দলের সঙ্গে জড়িত কোনো ব্যক্তি পর্যবেক্ষক হিসেবে বিবেচিত হতে পারেন না।

বাংলাদেশ বিশ্বের অন্যতম বৃহত্তম গণতান্ত্রিক দেশ হিসেবে বিশ্বের সবার প্রতি শ্রদ্ধা জানায়। গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়া অনুযায়ী বাংলাদেশ তার সব বন্ধু ও অংশীদারদের কাছ থেকে গঠনমূলক বিবৃতিকে স্বাগত জানায়।

৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠেয় একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন পর্যবেক্ষণে আন্তর্জাতিক ও দেশীয় পর্যবেক্ষকদের সব ধরনের সহযোগিতা দিতে প্রস্তুত বাংলাদেশ।

এর আগে গত ২১ ডিসেম্বর মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সহকারী মুখপাত্র রবার্ট পালাদিনো এক বিবৃতিতে বলেন, যথাসময়ে এএনএফআরইএলের পর্যবেক্ষকদের ভিসা ও অনুমোদন দিতে ব্যর্থ হওয়ায় বাংলাদেশ সরকারের বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্র হতাশ। তার ভাষ্য, এই বিলম্বের কারণেই এএনএফআরইএল ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিতব্য নির্বাচনে পর্যবেক্ষক পাঠানোর সিদ্ধান্ত বাতিল করেছে।