Home ক্যাম্পাস খবর ‘‘মুজিববর্ষ ২০২০’’ উপলক্ষ্যে ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়কে সবুজ ও নান্দনিক ক্যাম্পাস বিনির্মাণে পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচি...

‘‘মুজিববর্ষ ২০২০’’ উপলক্ষ্যে ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়কে সবুজ ও নান্দনিক ক্যাম্পাস বিনির্মাণে পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচি – ২০২০ স্বেচ্ছাসেবক ওরিয়েন্টেশন

SHARE

বিশ্ববিদ্যালয় পরিক্রমা :  আজ ৮জানুয়ারি বিকাল ৩টায় নবাব নওয়াব আলী চৌধুরী সিনেট ভবনের কনফারেন্স রুমে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর জন্মশতবার্ষিকী ‘মুজিববর্ষ ২০২০’ এবং ঐতিহ্যবাহী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শতবর্ষপূর্তি ও মহান স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষ্যে বিশ^বিদ্যালয়কে একটি সবুজ, পরিচ্ছন্ন ও নান্দনিক ক্যাম্পাস বিনির্মাণ করার লক্ষ্যে ঢাকা বিশ^বিদ্যালয় এস্টেট অফিস ও ঢাকা বিশ^বিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) যৌথ উদ্যোগে বিশেষ পরিচ্ছন্নতা অভিযানের শিক্ষার্থী স্বেচ্ছাসেবকদের ওরিয়েন্টেশন অনুষ্ঠিত হয়। এতে ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের সম্মানিত উপাচার্য অধ্যাপক মো: আখতারুজ্জামান প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত হয়ে দিক নির্দেশনা দেন। তিনি বলেন, “তোমরা বিশ^বিদ্যালয়কে সত্যিকারার্থেই ধারণ করো, তোমাদের সাধুবাদ জানাই। আমরা বিশ^বিদ্যালয়কে এমন জায়গায় দেখতে চাই সবুজ, শিক্ষার্থীবান্ধব ও পড়াশোনার উপযোগী। তিনি আরো বলেন, ক্যাম্পাসে ভ্রাম্যমান মানুষগুলোকে আমরা দেখতে চাইনা। প্রক্টর টিম এ ব্যাপারে কাজ করবে, তোমরা তাদের সহযোগিতা করবে। তোমাদের এমন একটি পবিত্র ক্যাম্পাস বিনির্মাণ করে যেতে হবে যেন তোমাদের পরবর্তী প্রজন্ম তোমাদের স্মরণ রাখে। বিশ^বিদ্যালয় প্রশাসন তোমাদের সহযোগিতা করবে।” উক্ত ওরিয়েন্টেশন প্রোগ্রামের সমন্বয়ক ডাকসুর সদস্য মুহা. মাহমুদুল হাসান বলেন, “আমরা আগামী তিনমাস এমনভাবে কাজ করবো যাতে শিক্ষার্থী ও দর্শনার্থীরা এই ক্যাম্পাসে বিনের বাইরে ময়লা ফেলতে লজ্জাবোধ করে। আমাদের আগমনী ভবিষৎ প্রজন্মের জন্য একটি বাসযোগ্য ক্যাম্পাস রেখে যেতে চাই।” এসময় উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের প্রক্টর গোলাম রাব্বানী ও সহকারী প্রক্টরবৃন্দ, ঢাকা বিশ^বিদ্যালয় এস্টেট অফিসের ভারপ্রাপ্ত ম্যানেজার সুপ্রিয়া সাহা। উক্ত প্রোগ্রামের সহযোগী সমন্বয়ক হিসেবে কাজ করছেন ডাকসুর সদস্য তিলোত্তমা সিকদার ও ফরিদা পারভীন।

উল্লেখ্য যে, উক্ত পরিচ্ছন্নতা অভিযানে ১০০ সদস্যের স্বেচ্ছাসেবক দল কাজ করবেন। ইতোমধ্যে প্রথম মেয়াদে ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের মধ্য আগামী তিনমাসের (১০/০১/২০২০ থেকে ১০/০৪/২০২০) জন্য ১০০ জনকে স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে অন্তুর্ভূক্ত করা হয়েছে।

আগামী ১২/০১/২০২০ তারিখ থেকে স্বেচ্ছাসেবকগণ ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের ৭টি জোনে দায়িত্ব পালন করবেন। প্রতি সপ্তাহের রবিবার, মঙ্গলবার ও বৃহস্পতিবার সকাল ১১টা থেকে ১টা প্রথম শিফট ও বিকাল ৪টা থেকে ৬টা দ্বিতীয় শিফটে স্বেচ্ছাসেবকগণ সচেতনতামূলক প্রচারণার দায়িত্ব পালন করবেন।