Home ব্রেকিং স্থানীয় সরকার বিভাগের সকল প্রতিষ্ঠান শক্তিশালী ও স্বনির্ভর করতে হবে: এলজিআরডি মন্ত্রীর।...

স্থানীয় সরকার বিভাগের সকল প্রতিষ্ঠান শক্তিশালী ও স্বনির্ভর করতে হবে: এলজিআরডি মন্ত্রীর। ভালো কাজের পুরষ্কার এবং মন্দ কাজের তিরষ্কারের ঘোষণা।


ঢাকা: ২০ জুলাই ২০২০ (মঙ্গলবার)

স্থানীয় সরকার বিভাগের অধীনস্ত দেশের সকল প্রতিষ্ঠানকে অর্থনৈতিকভাবে স্বনির্ভর করে আরো শক্তিশালী করতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহবান জানিয়েছেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলাম।

তিনি আজ মন্ত্রণালয়ে নিজ কক্ষ থেকে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সিটি কর্পোরেশনের বোর্ড মিটিং এ অংশগ্রহণকারী সকল কাউন্সিলরের উদ্দেশ্যে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ আহবান জানান।

মন্ত্রী বলেন, “জনপ্রতিনিধিদের মানুষের সুখে দুঃখে তাদের পাশে থাকতে হবে। রাস্তা ঘাট, স্বাস্থ্য, শিক্ষা এবং নিরাপত্তাসহ অন্যান্য নাগরিক সুযোগ-সুবিধা নিশ্চিত করতে হবে, যেন মানুষ বুঝে যে এক হাজার টাকা রাজস্ব দিলে এক লক্ষ টাকার সুযোগ-সুবিধা তৈরি হবে। তাহলেই মানুষ কর দিতে উৎসাহী হবে” বলে জানান মোঃ তাজুল ইসলাম।

তিনি বলেন, “আর এতে করে একদিকে যেমন এসব প্রতিষ্ঠান অর্থনৈতিকভাবে স্বনির্ভর ও শক্তিশালী হবে অন্যদিকে স্থানীয়ভাবে নাগরিক সেবা বৃদ্ধির মাধ্যমে সবার জন্য কল্যাণকর, সুখি ও শান্তিময় পরিবেশ তৈরি হবে।

নাগরিকদের থেকে কর আদায় প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, কর নির্ধারণ সুষম হতে হবে, কোন পক্ষপাত যেন না হয় সে দিকে লক্ষ্য রাখতে হবে।

সিটি কর্পোরেশনের জনপ্রতিনিধিদের উদ্দেশ্য করে মোঃ তাজুল ইসলাম বলেন, যেসব জনপ্রতিনিধি স্ব স্ব এলাকা পরিচ্ছন্ন, এডিস মশা মুক্ত, জলাবদ্ধতা নিরসন, মানুষের মৌলিক সমস্যা দূরীকরণ, সামাজিক মূল্যবোধ তৈরি ও প্রত্যাশিত কর আদায়সহ অন্যান্য সকল নাগরিক সুবিধা নিশ্চিত করবে তাদের একটি চেক লিস্ট তৈরি করে তাদেরকে পুরস্কৃত করা হবে।

সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলরদের কাজে গতি আনতে নিজ এলাকা জোন ভিত্তিক ভাগ করে ঐএলাকার সব শ্রেণী-পেশার মানুষকে নিয়ে কমিটি গঠন করার কথা পুনর্ব্যক্ত করে তিনি বলেন, গঠিত কমিটির টিম লিডার যারা ভালো কাজ করবেন তাদেরকেও পুরষ্কৃত করা হবে।

মন্ত্রী বলেন, মন্দ কাজ করলে যেমন শাস্তি পাবে তেমনি যারা ভালো কাজ করলে পুরস্কৃত করতে হবে। তাহলে ভালো কাজ করার আগ্রত হবে, দেশের উন্নয়নে গতি আসবে। নাগরিক সেবা বৃদ্ধি করতে কারো নির্দেশের অপেক্ষা না করে নিজেদের উদ্ভাবনী শক্তি কাজে লাগানোর আহ্বান জানান মন্ত্রী। নিজের উপর অর্পিত দায়িত্ব পালনে যেকোন বাধার সম্মুখীন হলে তার নিরাপত্তা দিতে মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে সব ধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দেন তিনি।

জনগণকে দেশের মালিক উল্লেখ করে স্থানীয় সরকার মন্ত্রী বলেন, দেশকে উন্নয়নের পথে এগিয়ে নিতে হলে জনগণের অংশগ্রহণের বিকল্প নেই।