Home বিনোদন রাজ কাপুর ও দিলীপ কুমারের বাড়িকে পাকিস্তানের রাষ্ট্রীয় সম্পদ ঘোষণা

রাজ কাপুর ও দিলীপ কুমারের বাড়িকে পাকিস্তানের রাষ্ট্রীয় সম্পদ ঘোষণা

SHARE

বিশ্ববিদ্যালয় পরিক্রমা ডেস্ক :  রাজ কাপুর ও দিলীপ কুমার ভারতীয় চলচ্চিত্রের দুই উজ্জ্বল নক্ষত্রের নাম। কিংবদন্তী এই দুই অভিনেতার পৈতৃক ভিটা কিনে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পাকিস্তানের খাইবার পাখতুনখাওয়া প্রশাসন। এই দুই তারকার বাড়ি বর্তমানে অযত্ন, অবহেলায় রয়েছে। এ বাড়িগুলো দেখভালের জন্য কোনো উত্তরসূরিও নেই। তাই যত তাড়াতাড়ি সম্ভব পাকিস্তান সরকার বাড়ি দুটি কিনে রাষ্ট্রীয় সংরক্ষণে নেবে বলে জানা গেছে। ইতোমধ্যে বাড়ি দুটিকে রাষ্ট্রীয় সম্পদ বলেও ঘোষণা করেছে পাকিস্তান সরকার।

এদিকে দিলীপ কুমারের স্ত্রী পাকিস্তান সরকারের এমন সিদ্ধান্তে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন। সায়রা বানু ইকনমিক টাইমসকে এক সাক্ষাৎকারে বলেন, আমি প্রাদেশিক সরকারের এমন উদ্যোগকে শুভেচ্ছা জানাই। অত্যন্ত আনন্দিত যে, আমার স্বপ্ন এতদিনে সত্যি হতে চলেছে। মাশাল্লাহ।

সায়রা আরও জানান, কয়েক বছর আগে তিনি ও দিলীপ কুমার সেই বাড়িতে গিয়েছিলেন এবং শৈশবের স্মৃতিস্মরণ করে নস্টালজিয়ায় ভেসে অত্যন্ত আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিলেন।

খাইবার পাখতুনখাওয়া প্রদেশের অন্তর্গত কিসা খওয়ানি বাজার এলাকায় অবস্থিত রাজ কাপুর ও দিলীপ কুমারের পৈতৃক ভিটা। দীর্ঘদিন অযত্নে থাকায় এগুলোর অবস্থা এখন ভালো নয়। সেখানকার প্রাদেশিক সরকার তা ভেঙে না দিয়ে সম্প্রতি গুরুত্বপূর্ণ ভবনগুলো কিনে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়। তারই আওতায় উপমহাদেশের খ্যাতিমান এই দুই অভিনেতার বাড়ি কিনে নিচ্ছে পাকিস্তান সরকার। দেশটির প্রত্নতত্ত্ব বিভাগ সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে ভবন দুটিকে জাতীয় ঐতিহ্য হিসেবে ঘোষণা দেওয়া হবে। বাড়ি দুটিতে তৈরি করা হবে স্মারক ভবন।

রাজ কাপুর ও দিলীপ কুমার- দুজনেরই জন্ম পাকিস্তানের পেশোয়ারে। ১৯৪৭ সালে ভারত আর পাকিস্তান ভাগ হওয়ার সময় এই দুই অভিনেতা ভারতে চলে যান। সাদাকালো থেকে রঙিন-টানা কয়েক দশক হিন্দি চলচ্চিত্রের দুনিয়ায় সফলভাবে রাজত্ব করেন। সূত্র: এনডিটিভি।