Home সারা বাংলা ফুডপ্যান্ডা এখন শরীয়তপুর সদরে

ফুডপ্যান্ডা এখন শরীয়তপুর সদরে


নিজস্ব প্রতিবেদক: ‘শুরেশ্বরী ডাটা, পদ্মার ইলিশ আর খেজুরের গুড় এই তিনে শরীয়তপুরবাসীর পছন্দের রেস্টুরেন্টের খাবার এখন মুহুর্তেই ঘরের দরজায় পৌঁছে দেবে দেশের শীর্ষ অনলাইন ফুড ডেলিভারি প্রতিষ্ঠান ফুডপ্যান্ডা। ১২ ডিসেম্বর শনিবার থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে শরীয়তপুর সদরে যাত্রা শুরু করেছে ফুডপ্যান্ডা।

শরীয়তপুর যাত্রা শুরু প্রসঙ্গে ফুডপ্যান্ডা বাংলাদেশ- এর সিইও আম্বারিন রেজা বলেন, “যাত্রার শুরু থেকেই গ্রাহক পর্যায়ে উল্লেখযোগ্য সাড়া অর্জনের পর আমরা আমাদের সেবা সকল জেলায় ছড়িয়ে দিচ্ছি। তারই অংশ হিসেবে ফুডপ্যান্ডা এখন শরীয়তপুর সদরে। এখন থেকে শরীয়তপুরবাসীর পছন্দের সব রেস্টুরেন্টের খাবার মুহুর্তেই ঘরের দরজায় পৌঁছে দিবে ফুডপ্যান্ডা। একই সাথে ফুডপ্যান্ডার মাধ্যমে নতুন কর্মসংস্থানের সৃষ্টি হবে ওই এলাকায়।”
বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ ফুড ডেলিভারি অ্যাপ ফুডপ্যান্ডা মূলত ভোজনরসিকদের ভোজনকে আরও আরামদায়ক ও উপভোগ্য করে তোলার লক্ষ্যে স্থানীয় রেস্টুরেন্টগুলোর সাথে সমন্বয় করে গ্রাহকের পছন্দের খাবার দোরগোড়ায় পৌঁছে দেয়। বর্তমানে ফুডপ্যান্ডা’র রাইডাররা বাংলাদেশের ৬২টি শহরে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য ও বিভিন্ন রেস্টুরেন্টের খাবার সরবরাহ করছে।
ফুডপ্যান্ডা :
ফুডপ্যান্ডা এশিয়া প্যাসিফিকের একটি শীর্ষস্থানীয় ডেলিভারী প্ল্যাটফর্ম, যা সুবিধাজনক ও দ্রুততম সময়ে খাবার ও নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যসহ আরও অনেক কিছু তার গ্রাহকদের কাছে পোঁছে দিতে কাজ করছে। প্রযুক্তি ও পরিচালন দক্ষতার সমন্বয়ে এবং রিটেইল পার্টনারদের নেটওয়ার্ককে পুঁজি করে এই অঞ্চলের কুইক-কমার্সে (কিউ-কমার্স) নেতৃত্ব দিচ্ছে ফুডপ্যান্ডা। খাবার ডেলিভারি দেওয়া লাখো অপশনের পাশাপাশি প্যান্ডামার্ট ক্লাউড স্টোরের মাধ্যমে অন-ডিমান্ড পণ্য ডেলিভারি অপশন সুবিধাও প্রদান করছে। এশিয়া প্যাসিফিকের ১২ টি বাজার সহ সিঙ্গাপুর, হংকং, থাইল্যান্ড, মালয়েশিয়া, পাকিস্তান, তাইওয়ান, ফিলিপাইন, বাংলাদেশ, লাওস, কম্বোডিয়া, মায়ানমার এবং জাপান জুড়ে ৩০০ টিরও বেশি শহরে ফুডপ্যান্ডার কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে। ফুডপ্যান্ডা আন্তর্জাতিক ফুড ডেলিভারি ইন্ডাস্ট্রিতে নেতৃত্ব প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ডেলিভারি হিরো’র একটি অঙ্গপ্রতিষ্ঠান।
ডেলিভারি :
ডেলিভারি হিরো, এশিয়া, ইউরোপ, লাতিন আমেরিকা, মধ্যপ্রাচ্য এবং উত্তর আফ্রিকা জুড়ে ৪৯টি দেশে সেবা কার্যক্রম পরিচালনাকারী বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় স্থানীয় ডেলিভারি প্ল্যাটফর্ম। ২০১১ সালে ফুড ডেলিভারি সার্ভিস হিসেবে যাত্রা শুরু করে বর্তমানে ৭০০টিরও বেশী শহরে নিজস্ব ডেলিভারি প্ল্যাটফর্ম পরিচালনা করছে প্রতিষ্ঠানটি। এছাড়া মাত্র ২০ মিনিটের মধ্যে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য গ্রাহকের দোরগোড়ায় পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্য নিয়ে ই-কমার্সের পরবর্তী ধাপ কুইক-কমার্সের নেতৃত্ব দিচ্ছে ডেলিভারি হিরো। জার্মানির বার্লিন ভিত্তিক এই প্রতিষ্ঠানটির বর্তমান কর্মী সংখ্যা ২৭ হাজারেরও বেশি। ডেলিভারি হিরো ২০১৭ সাল থেকে ফ্রাঙ্কফুর্ট স্টক এক্সচেঞ্জের তালিকাভুক্ত এবং ২০২০ সালে প্রতিষ্ঠানটি শীর্ষস্থানীয় সূচক ডিএএক্স (ডয়েচার অ্যাকটিয়েনিন্ডেক্স)-এর সাথে যুক্ত হয়েছে।