Home ব্রেকিং ষড়যন্ত্র মোকাবিলায় সকলকে জাগ্রত থাকতে হবে: মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস

ষড়যন্ত্র মোকাবিলায় সকলকে জাগ্রত থাকতে হবে: মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস

SHARE

দেশের অভ্যন্তরে যে কোনো ষড়যন্ত্র মোকাবিলায় ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের প্রতিটি নেতাকর্মীদের জাগ্রত থাকার আহ্বান জানিয়ে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস বলেছেন, ৭৫’এর ১৫ আগস্ট আর বাংলাদেশে আসবে না, ১/১১ আর আসবে না। এটা কিন্তু মনে করা যাবে না।

তিনি বলেন, ষড়যন্ত্রকারীরা সারাজীবন ষড়যন্ত্র করবে। তারা সব সময় অশান্তি সৃষ্টির পায়তারা করে যাচ্ছে। এই বিষয়ে সকলকে সতর্ক ও জাগ্রত থাকতে হবে। এ জন্য সংগঠনকে আরও শক্তিশালী করতে হবে। নিজেদের মধ্যে বিভ্রান্তি ছাড়ানো যাবে না।

মহানগর আওয়ামী লীগ যদি শৃঙ্খলবদ্ধ ও শক্তিশালী থাকে, তাহলে যে কোনো ষড়যন্ত্রই মোকাবিলা আমাদের জন্য সহজ হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশের উন্নয়নের ধারা অব্যহত রাখতে পারবো।

শনিবার (২৩ জানুয়ারি)  রাজধানীর গুলিস্তানে অবিভক্ত ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত  সভাপতি মরহুম এম .এ .আজিজ এর স্মরণ সভা ও দোয়া মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকের নেতৃত্বের প্রসংশা করে তিনি বলেন, মহানগরের প্রতিটি ওয়ার্ড ও থানা তৃণমূল থেকে সংগঠনকে সাজাতে হবে। সংগঠনের শৃঙ্খলা প্রতিষ্ঠা করতে তৃণমূলের প্রতিটি ত্যাগী, পরিশ্রমী ও দক্ষ নেতাকর্মীদের মূল্যায়ন করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, দল ক্ষমতায় রয়েছে, অনেকেই সুযোগ নিতে দলে আসবে। কিন্তু এদের দলে স্থান দেয়া যাবে না। প্রতিটি অনুপ্রবেশকারীদের দল থেকে বিতারিত করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, দল ক্ষমতায় রয়েছে, অনেকেই সুযোগ নিতে দলে আসবে। কিন্তু এদের দলে স্থান দেয়া যাবে না। প্রতিটি অনুপ্রবেশকারীদের দল থেকে বিতারিত করতে হবে।

এসময় দলীয় নেতাকর্মীদের বিতর্কিত কর্মকাণ্ড থেকে বিরত থাকার পরামর্শও দেন ঢাকা দক্ষিণ সিটির এই মেয়র।

শেখ ফজলে নূর তাপস বলেন, আমাকে যে গুরু দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের কাধেঁ কাধঁ মিলিয়ে কাজ করে যাবো এবং এই ঢাকাকে একটি উন্নত শহর হিসেবে গড়ে তুলবো। এ জন্য যা যা করণীয় আমরা সব করে যাবো। এই দায়িত্ব পালনের জন্যই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমাদের দায়িত্ব দিয়েছেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাস মোকাবিলার প্রসংশা করে তিনি আরও বলেন, করোনা নিয়ে অনেকেই অনেক কথা বলেছেন। অনেক বিভ্রান্ত ছড়ানো হয়েছে। তারপরও কিন্তু করোনার টিকা দেশে পৌঁছে গেছে। এটাই বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বের গুণ। যে যাই বলুক না কেন, শেখ হাসিনা যা

বলেন, তাইই করেন।

তাপস আরও বলেন, করোনা মুক্ত জীবন কাটাতে হলে সবাইকে টিকা নিতে হবে। যারা টিকা নিয়ে বিভ্রান্ত ছড়াচ্ছে; তাদের বিষয়ে সকলকে সতর্ক থাকতে হবে। কেউ গুজবে কান দিবেন না।

স্মরণ সভা ও দোয়া মাহফিলে সভাপতির বক্তব্যে মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আবু আহমেদ মন্নাফী বলেন, মরহুম এম. এ.আজিজ ছিলেন একজন ভদ্র রাজনীতিবিদ। তার হাত ধরেই মহানগর আওয়ামী লীগ সফল আন্দোলন-সংগ্রাম হয়েছে। মহানগরের রাজনীতিতে তার অবদান অসামান্য। অথচ  ১/১১ সরকারের সময় আওয়ামী লীগের অনেক বড় বড় নেতা ছিলেন। সেসময় তাদের খুঁজে পাওয়া যায় নাই।  কিন্তু তিনি নেতৃত্ব দিয়েছেন।